[gtranslate]

পশুপাখি, মুরগির ডিম কিংবা মাংসের মাধ্যমে করোনা ভাইরাস এর বিস্তার ঘটার সম্ভাবনা নাই- বাকৃবি করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ টাস্কফোর্স

প্রকাশিতঃ ৬:২৯ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ০৩, ২০২০

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (বাকৃবি) করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ টাস্কফোর্স অাজ শুক্রবার ০৩ এপ্রিল ২০২০ এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, পশুপাখি, মুরগির ডিম কিংবা মাংসের মাধ্যমে করোনা ভাইরাস এর বিস্তার ঘটার কোন সম্ভাবনা নেই। তাই সবাইকে প্রাণিজ আমিষ জাতীয় খাদ্য অন্য সময়ের তুলনায় বেশি করে খাওয়ার জন্য পরামর্শ প্রদান করা হয় | বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়  অামাদের বয়স্কদের খাবারের প্রতি বিশেষ যত্নবান হতে হবে। প্রাণিজ আমিষ সমৃদ্ধ খাদ্যে রয়েছে অত্যাবশ্যকীয় অ্যামাইনো এসিড, জিংক, আয়রন, এবং বিভিন্ন ধরনের ভিটামিন ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা মানবদেহে এন্টিবডি তৈরি করে রোগ প্রতিরোধক ক্ষমতা বাড়ায়।করোনা ভাইরাস COVID-19 এর সংক্রমণ প্রতিরোধের জন্য বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ১১ এপ্রিল ২০২০ তারিখ পর্যন্ত সবাইকে “সামাজিক দূরত্ব” বজায় রাখা এবং নিজ নিজ বাড়িতে অবস্থান করার নির্দেশ প্রদান করেছেন। সমগ্র জাতি তা অত্যন্ত গুরুত্ব ও সচেতন ভাবেই পালন করছে।বিজ্ঞপ্তিতে অারও বলা হয়,করোনা ভাইরাস এর সাথে যুদ্ধ করে টিকে থাকতে হলে  আমাদের রোগ প্রতিরোধ করার ক্ষমতা বৃদ্ধি করার কোন বিকল্প নেই। এমতাবস্থায় আমরা মনে করি বর্তমান সময়ে আমাদের প্রতিদিনের খাদ্যে পরিমিত পরিমাণে দুধ, ডিম, মাছ, মাংস, তাজা শাকসবজি ও ফল থাকা একান্তই প্রয়োজনীয়।অতএব সবাইকে প্রাণিজ আমিষ জাতীয় খাদ্য অন্য সময়ের তুলনায় বেশি পরিমাণে খাওয়া প্রয়োজন,আসুন আমরা সবাই নিজ নিজ গৃহে অবস্থান করি। অকারনে ঘরের বাহিরে বের না হই। নিজে ও পরিবারের সবাই নিরাপদে থাকি এবং করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা শতভাগ পালন করি।

কৃষিবিদ দীন মোহাম্মাদ দীনু
ঊপ-পরিচালক
জনসংযোগ ও প্রকাশনা,বাকৃবি
dinu@bau.edu.bd
01712198929